magazine_cover_12_january_17.jpg

Anandalok Review

  • x

    বেলাশেষে

    শিবপ্রসাদ মুখোপাধ্যায় এবং নন্দিতা রায়কে ধন্যবাদ। ‘বেলাশেষে’র মাধ্যমে ছ’বছরে ছ’টি দুর্দান্ত হিট ছবি দেওয়ার জন্য। এতদিন পরে বাংলা ছবির দর্শক আক্ষরিক অর্থে একটি ‘পারিবারিক’ ছবি উপহার পেলেন। বিশ্বনাথ এবং আরতি মজুমদারের ৫০ বছরের বিবাহবার্ষিকীর আগে ডিভোর্সের আবেদন করেন। আর তাই দিয়েই শুরু হয় ‘বেলাশেষে’র আখ্যান। সত্যিই শিবু-নন্দিতা এক পরিবারের সূত্রে বেঁধেছেন দর্শকদের। একটা ব্যাপার সত্যি, ‘বেলাশেষে’ এখনও পর্যন্ত শিবু-নন্দিতার তৈরি সেরা ছবি।

    More
  • x

    নির্বাক

    গল্পের মূল বিষয়বস্তু হল শব্দহীন কোনও জীবের সঙ্গে মানুষের সম্পর্ক ও ভালবাসা। যারা মানুষ নয়, তারা মানুষকে ভালবাসলে তার পরিণতি কী হতে পারে? এটা কি অস্বাভাবিক? অস্বস্তিকর? এই প্রশ্নগুলোই খুব বিশ্বস্তভাবে এই ছবিতে তুলে ধরেছেন সৃজিত মুখোপাধ্যায়। মধ্যবয়সী জ্যাজ় মিউজ়িশিয়ান স্যামসন গোম্স (অঞ্জন দত্ত) আত্মরতিবিভোর নিঃসঙ্গ এক পুরুষ, তাঁর সঙ্গে আলাপ হওয়া একটি মেয়েকে (সুস্মিতা সেন) ভালবেসে ফেলে পার্কের একটি গাছ।

    More
  • x

    ঝুমুরা

    ঝুমুর গানের কথা এখন আর কতজন জানেন? ওয়াকিবহাল লোক ছাড়া সত্যিই এই বিষয়ে ‘জানাশোনা’ লোক কম। সেইরকম একটি বিষয় নিয়ে নিজের প্রথম সিনেমা বানিয়েছেন অনিন্দ্য চট্টোপাধ্যায় (‘ওপেন টি বায়োস্কোপ’-খ্যাত নন), এবং বলতে বাধা নেই, কাজটি বেশ ভালই হয়েছে। ছবিটি শেষ পর্যন্ত ঝুমুর নিয়ে একটি ডকুমেন্টারি হয়ে যেতে পারত। কিন্তু তা না হয়ে হয়েছে সুন্দর প্রেমের গল্প। ঝুমুর নিয়ে একটি আর্টিকল লেখার জন্য, রিসার্চ করতে পুরুলিয়া যায় তরুণ সাংবাদিক সাহানা (সোহিনী), সঙ্গে ফেটোগ্রাফার ঋক (সমদর্শী)। সারাক্ষণ দু’জনে ঝগড়া করে, সদ্ভাব মোটেই নেই। দু’জনেরই প্রেমিক-প্রেমিকা আছে। কথাটা বললাম কারণ পরে কাজে লাগবে।…

    More